প্রেস বিজ্ঞপ্তি:
বাংলাদেশ জামায়াতে ইসলামী কক্সবাজার জেলা শাখার উদ্যোগে চকরিয়ায় রুকন সম্মেলন অনুষ্ঠিত হয়েছে। ৮ই জুলাই সকাল ৮টায় অনুষ্ঠিত উক্ত সম্মেলনে চকরিয়া উপজেলা, চকরিয়া পৌরসভা ও মাতামুহুরি সাংগঠনিক থানার রুকনগণ স্বতঃস্ফূর্তভাবে অংশগ্রহণ করেন। জেলা জামায়াতের শূরা ও কর্মপরিষদ সদস্য বিশিষ্ট অর্থনীতিবিদ আখতার আহমদের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত উক্ত সম্মেলনে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন কক্সবাজার জেলা জামায়াতের আমীর, কেন্দ্রীয় শূরা সদস্য ও হোয়াইক্যং ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান অধ্যক্ষ নুর আহমদ আনওয়ারী। প্রধান বক্তা হিসেবে উপস্থিত ছিলেন বাংলাদেশ জামায়াতে ইসলামী মনোনীত জাতীয় সংসদ সদস্য প্রার্থী (চকরিয়া-পেকুয়া) ও কক্সবাজার শহর জামায়াতের আমীর আব্দুল্লাহ আল ফারুখ।

প্রধান অতিথি তার বক্তব্যে বলেন, দীন ইসলামের দাওয়াত প্রতিটি ঘরে ঘরে পৌঁছিয়ে দিতে হবে। এক্ষেত্রে রুকনগণই হচ্ছে সংগঠনের মূল চালিকাশক্তি। তাই সবাইকে ত্যাগ ও কুরবানির শিক্ষায় উজ্জীবিত হয়ে ন্যায় ও ইনসাফ-ভিত্তিক সমৃদ্ধ বাংলাদেশ গড়ার লক্ষ্যে ঐক্যবদ্ধ প্রচেষ্টা চালাতে হবে। অন্যদিকে প্রধান বক্তা বলেন, বাংলাদেশের হারানো গণতন্ত্র পুনরুদ্ধার, কেয়ারটেকার সরকার প্রতিষ্ঠা ও জাতীয় নেতৃবৃন্দের মুক্তির আন্দোলন, আগামী নির্বাচনে বিজয় নিশ্চিত-সহ দেশ ও জাতির প্রয়োজনে যে কোনো আন্দোলন-সংগ্রামে সাধারণ জনগণকে সাথে নিয়ে শপথের কর্মীদেরকে ময়দানে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করতে হবে।

সম্মেলনে স্বাগত বক্তব্য রাখেন জেলা জামায়াতের শূরা ও কর্মপরিষদ সদস্য মাওলানা হেদায়েত উল্লাহ। বিশেষ অতিথির বক্তব্য রাখেন চকরিয়া উপজেলা আমীর মাওলানা আবুল বশর, চকরিয়া পৌরসভা আমীর আরিফুল কবির, মাতামুহুরি সাংগঠনিক থানা আমীর ফরিদুল আলম। আরো বক্তব্য রাখেন সাবেক উপজেলা আমীর মাস্টার রফিক উদ্দিন আহমেদ, মাওলানা ছাবের আহমেদ ফারুকী ও মাওলানা মোজাম্মেল হক, খুটাখালী ইউনিয়নের চেয়ারম্যান ও খুটাখালী ইউনিয়ন জামায়াতের আমীর মাওলানা আব্দুর রহমান, হারবাং ইউনিয়নের সাবেক চেয়ারম্যান জহির উদ্দিন আহমেদ বাবর, কক্সবাজার জেলা ছাত্রশিবিরের সভাপতি আব্দুল মজিদ প্রমুখ। সম্মেলনে বক্তারা চকরিয়া-পেকুয়া আসনের বিজয় নিশ্চিত করতে রুকনদের প্রতি আহ্বান জানান।

আরো খবরঃ

টেকনাফ উপজেলা মৎস্যজীবীদলের ৮১ সদস্য বিশিষ্ট কমিটি অনুমোদন

বৈশ্বিক উষ্ণায়ন ও একজন সবুজ বিপ্লবের ফেরিওয়ালা