হ্যাপী করিম ,মহেশখালী প্রতিনিধি:
বেসরকারী উন্নয়ন সংস্থা সুশীলন, German Federal Ministry for Economic Cooperation and Development (BMZ) 4 অর্থায়নে, দাতাসংস্থা GIZ এর কারিগরি সহযোগিতায় Supporting Host & Rohingya Communities Cox’s Bazar- GIZ Livelihoods Intervention 2020-2023 Ukhiya and Maheskhali প্রকল্পটির মাধ্যমে “সুশীলন” এর এই ক্ষুদ্র ও মাঝারী উদ্যোক্তা উন্নয়নে বাজার সম্পৃক্তকরণ বিষয়ক কর্মশালা ও উদ্যোক্তা মেলা অনুষ্ঠিত।

২৩ নভেম্বর-২২ বুধবার, সকাল সাড়ে ৯ টায় উপজেলা চত্তরে বেসরকারি এনজিও সুশীলন আয়োজনে ক্ষুদ্র ও মাঝারী উদ্যোক্তা উন্নয়নে বাজার সম্পৃক্তকরণ বিষয়ক দিনব্যাপী কর্মশালা ও উদ্যোক্তা মেলার শুভ উদ্বোধন করবেন প্রধান অতিথি উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান আলহাজ্ব মোহাম্মদ শরীফ বাদশা।

প্রকল্পের কার্যক্রম এবং উপকারভোগীদের উৎপাদিত পণ্য প্রদর্শনি সঠিকভাবে সফল করার লক্ষ্যে সার্বিক পরামর্শ প্রদান করেন সুশীলন এর উপ-পরিচালক সচ্চিদানন্দ বিশ্বাস, উক্ত অনুষ্ঠানে সিডিও সুশীলন মিজানুর রহমান সঞ্চালনায় অনুষ্ঠানের শুরুতে প্রকল্প সার্বিক বিষয়ে উপস্থাপন ও স্বাগত বক্তব্য করেন…প্রকল্প সমন্বয়কারী সুশীলন মোহাম্মদ আজিজুর রহমান।

এসময় বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন.. উপজেলা কৃষি অফিসার রফিকুল ইসলাম, উপজেলা প্রকল্প বাস্তবায়ন কর্মকর্তা রাশেদুল ইসলাম, উপজেলা সমবায় কর্মকর্তা জি এম মাসুদ কুতুবী, মহেশখালী থানার (ওসি তদন্ত) মীর আব্দুর রাজ্জাক, উপজেলা সমাজ সেবা কর্মকর্তা দিদারুল আলম, মহেশখালী প্রেসক্লাব সভাপতি আবুল বশর পারভেজ ও সাধারণ সম্পাদক এম ছালামত উল্লাহ বিএ, শাপলাপুর ইউপি প্যানেল চেয়ারম্যান জসিম উদ্দিন, মহেশখালী হাসপাতালের সহকারী স্বাস্থ্য পরিদর্শক সুজিত কুমার দে ও কমল কৃষ ঘোষ।

আরও উপস্থিত ছিলেন জাহাঙ্গীর আলম বিডিও, নাদিয়া আফরিন ইউপিএমআরও, প্রকল্পে ফিল্ড অফিসার তরিকুল ইসলাম, নাসিমা আক্তার, মোঃ ওমর ফারুক, সিডিও নাসরিন সুলতানা, ইয়াসমিন আক্তার এবং এসএমই, শিক্ষানবিশগণ ও গণমাধ্যম কর্মীবৃন্দ। অনুষ্ঠানে ইডি, এসএমই ও শিক্ষানবিশগণ উপকারভোগীগন, বক্তব্য রাখেন, সুব্রত আপন, রবিউল আলম, বিলকিস আক্তার, আমান।

উল্লেখ্য-“সুশীলন” এর এই ক্ষুদ্র ও মাঝারী উদ্যোক্তা উন্নয়নে বাজার সম্পৃক্ত উপকারভোগীদের উৎপাদিত পন্য সামগ্রিই নিয়ে উপজেলার ৪নং শাপলাপুর ও ৮নং কুতুবজোম ইউনিয়নের ১৪ জন এসএমই এবং ক্ষুদ্র উদ্যোক্তারা (ED BNFs) মেলায় তাদের পন্যসামগ্রী নিয়ে অংশগ্রহন করেন। এছাড়াও কোম্পানি ও স্থানীয় ব্যবসায়ি, ব্যাংক কর্মকর্তা এবং বিভিন্ন এনজিও প্রতিনিধিসহ সংস্থার অন্য প্রকল্পের কর্মকর্তা বৃন্দ। উল্লেখ্য যে, ভগীরত দে লাল তীর, মো: মোসাতাকিম এসিআই, স্থানীয় ক্রেতা বিক্রেতাগণ।

সুশীলনের এই আয়োজন ও উদ্যোগকে স্বাগত জানান প্রধান অতিথি, এবং প্রকল্পের স্থানীয় উদ্দ্যোক্তা ও উপকারভোগী প্রসার বিভিন্ন সেবা প্রতিষ্ঠান থেকে পন্য ক্রয় ও বিক্রয় সেবা গ্রহন ও বেগবানসহ বেকারত্বের নতুন নতুন কর্মক্ষেত্র তৈরি হবে বলে।